২০২০ তে রাশিয়ার যে আট্যাকিং হেলিকপ্টার গুলি চিন্তার কারন

নিউজ ডেস্কঃ ভারতবর্ষের হাতে থাকা হেলিকপ্টারের একটা বিরাট অংশ রাশিয়ার থেকে ক্রয় করা। তবে শুধু ভারতবর্ষ নয় ভারতের পাশাপাশি এরকম প্রচুর দেশ রয়েছে যাদের হাতে রাশিয়ার তৈরি হেলিকপ্টার গুলি থাকে। বিশেষ করে কামভ এর তৈরি হেলি গুলির চাহিদা সারা বিশ্বে প্রচুর পরিমানে।

তবে শুধু কামভ নয় কামভের পাশাপাশি মিলের তৈরি আট্যাকিং হেলি গুলি যেকোনো সময় সারা বিশ্বের ঘুম কেড়ে নিতে পারে। এই দুই কোম্পানির তৈরি হেলিকপ্টার গুলি রাশিয়ার বায়ু এবং নৌসেনার কাছে দেখা যায়।

মিলের তৈরি তিনটি বিধ্বংসী হেলি হল মিল মি ২৪, মিল মি ৩৫ এবং মিল মি ২৮ এই তিনটি হেলি হল বর্তমানে রাশিয়ার অন্যতম ব্যাক বোন। এছাড়াও কামভের তৈরি কামভ ৫২ যা যেকোনো সময় শত্রুপক্ষের ঘুম কেড়ে নিতে পারে।

হেলিটি বায়ু থেকে বায়ুতে হামলা চালাতে সক্ষম। ৮ থেকে ১০ কিলোমিটারের মধ্যে এটি হামলা চালাতে পারদর্শী। এটি তৈরি করা হয় মূলত ভূমিতে হামলা চালানোর জন্য। হেলিটি ১৯৯৭ সালে প্রথমবার আকাশে উড়তে দেখা যায়। ১০০ র উপরে এই যুদ্ধবিমান নিজেদের বিমান বহরের জন্য অর্ডার করেছে রাশিয়া।

রাশিয়া ছাড়াও ইজিপ্টের কাছে এই বিধ্বংসী হেলিটি রয়েছে। ১ জন নিয়ে হেলিকপ্টারটি প্রায় ২০০০ কেজি যুদ্ধাস্ত্র বহনে সক্ষম। ৩১৫ কিমি/ঘণ্টার গতিবেগে প্রায় ৫৫০০ কিমি পর্যন্ত পারি দিতে সক্ষম। এছাড়াও ১৮০০০ ফুট উচ্চতা থেকে হামলা চালানোর পাশাপাশি অ্যান্টি ট্যাঙ্ক মিসাইল বহনে সক্ষম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *