চীন, পাকিস্তানকে যেকোনো সময় গুঁড়িয়ে দিতে পারে। বিধ্বংসী সাবসনিক, সুপারসনিক ও হাইপারসনিক মিসাইল হাতে আসতে পারে ভারতের

নিউজ ডেস্কঃ ভারত-চীন সীমান্তে উত্তেজনার পর থেকে ভারতের ডিফেন্সের ক্ষেত্রে উন্নতি হচ্ছে তা চোখে পরার মতো। আর সেই কারনে একাধিক মিসাইল থেকে শুরু করে যুদ্ধবিমান, সাবসনিক মিসাইলের যেভাবে উন্নতি হচ্ছে তা সত্যি প্রশংসনীয়।

শৌর্য হাইপারসনিক মিসাইল অপরেশেনাল করলো কেন্দ্র সরকার। আত্মনির্ভরতায় জোড় দিতে ভারতসরকার এবার শৌর্য হাইপারসনিক মিসাইল সম্পর্ন রূপে স্ট্রেটেজিক ফোর্স কম্যান্ডের হাতে তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এর ফলে ভারতের শর্ট মিডিয়াম রেঞ্জ নিউক্লীয়ার স্ট্রাইকের ক্ষেত্রে ব্যপক আপগ্রেডেড ভেহিকেল হাতে পেল।

গত কয়েক মাসে ডিআরডিও বিরাট উন্নতি করেছে। ক্যনন লঞ্চড এ্যন্টিট্যঙ্ক মিসাইল অর্জুন থেকে পরীক্ষা করা হল। তারপর HSTDV, শৌর্য, ব্রাহ্মোসের বর্ধিত রেঞ্জের একটি ভার্সান টেস্ট হল, আবার তারপর টেস্ট হল SMART। সব মিলিয়ে ভারতের প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে মিসাইল সিস্টেমের ব্যপক উন্নয়নের সম্মুখীন হচ্ছে ভারত। এর মধ্যে লিমিটেড সিরিজ প্রোডাক্সান করে কিছু নির্ভয়কে বর্ডারে চীনের বিরুদ্ধে ভারত মোতায়েন করেছে। সাবসনিক, সুপারসনিক ও হাইপারসনিক সব দিকে ভারতের ব্যপক অগ্রগতি লক্ষণীয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *