মাত্র ৩ ঘণ্টায় মিশরের ৩০০ র উপর যুদ্ধবিমান উড়িয়ে দিয়েছিল ইসরায়েল

নিউজ ডেস্কঃ সামরিক শক্তির দিক থেকে ইসরায়েল যে কতোটা শক্তিশালী, তা আর নতুন করে কিছু বলার নেই। একাই সাতটি দেশের যুদ্ধ করছিল। তাদের ক্ষমতা বা কতোটা এগিয়ে তারা আজ থেকে ৫০ বছর আগেই প্রমান করেছিল। মাত্র ছয় দিনের যুদ্ধেই বেশ কিছু দেশকে তারা উচিৎ শিক্ষা দিয়েছিল।

১৯৬৭ সালে ইসরায়েল তাদের বীরত্বের প্রমান দিয়েছিল। ৫ থেকে ১০ জুন মাত্র ছয় দিনের যুদ্ধে শত্রুপক্ষের ঘুম কেড়ে নিয়েছিল। যাকে সিক্স ডে ওয়ার বা ছয় দিনের যুদ্ধ বলা  হয়ে থাকে।

১৯৪৮ সালে স্বাধীনতা পায় ইহুদী রাষ্ট্র ইসরায়েল। আর তারপর থেকেই ইসরায়েলের উপর নজর দছিল সিরিয়া, লেবানন, জর্ডন, মিশরের মতো দেশ গুলির। আর তারপরেই ইসরায়েলের উপর আঘাত হানে তারা। আর আরবের এই দেশ গুলির বিরুদ্ধে খুব সহজেই জয় পেয়েছিল ইসরায়েল। প্রায় বছর খানেক যুদ্ধ চলেছিল। প্যালেস্তাইনের কিছু অংশ যুদ্ধে তারা জয় করে নেয়।

এরপর ১৯৬৭ তে ইসরায়েলকে আক্রমণ করে বসে মিশর, সিরিয়া এবং জর্ডন। এই তিন দেশের হামলা একাই সামলেছিল তারা।

সীমান্তের দিকে মিশরের সেনা হামলা করতে থাকে আর অপরদিকে গোলান হাইটসের কাছে বায়ুসেনা মোতায়েন করেছিল সিরিয়া। তবে বাকি দেশ গুলি জানতো না যে এই যুদ্ধের জন্য যথেষ্ট প্রস্তুত ছিল ইসরায়েল। কারন তাদের গুপ্তচর সংস্থা মোসাদের কাছে সব খবর ছিল এবং তাদের হাতে সেইসময় অত্যাধুনিক ইলেকট্রনিক ওয়ার্নিং সিস্টেম রয়েছে। যুদ্ধ শুরু হতে না হতেই শেষ। আরবের দেশ গুলিকে ইসরায়েল বুঝিয়ে দিয়েছিল যে তাদের বিরুদ্ধে জয় পাওয়া এতোটা সহজ নয়।

মাত্র তিন ঘণ্টার মধ্যে মিশরের ৩০০ এর উপর যুদ্ধবিমানকে গুলি করে নামিয়েছিল ইসরায়েলের সেনা, আর তাদের হাতে মোট ৩৪০ টি যুদ্ধবিমান ছিল। মিশরের গাজা স্ট্রিপ এবং সিনাই উপদ্বীপ দখল করে নেয় ইসরায়েল। সিরিয়া এবং জর্ডনকে হারিয়ে গোলান হাইটস ও ওয়েস্ট ব্যাংকও চলে চলে এসেছিল তাদের হাতে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *