তুরস্কের সর্বাধুনিক রেডার ধ্বংস ফ্রান্সের

নিউজ ডেস্কঃ ভারতের হাতে রাফালে আসার পর যে ভারতের শক্তিবৃদ্ধি পাবে তা বলাই বাহুল্য। ইতিমধ্যেই রাফালের ক্ষমতা যে কতোটা তা দেখিয়েছে ফ্রান্স।

রাফালে ইতিমধ্যে লিবিয়ার আল- ওয়াতিয়া এয়ারবেসে থাকা তুরস্কের এয়ারডিফেন্স সিস্টেমকে ধ্বংস করেছিল। লিবিয়ার এক সংবাদ মাধ্যমের খবর অনুযায়ী ফ্রান্সের রাফায়েল জেট এখানে এয়ারস্ট্রাইক করে।

বর্তমানে লিবিয়া কে কেন্দ্র করে ফ্রান্স,তুরস্ক , সংযুক্ত আরব আমির শাহী এবং মিশরের মধ্যে ঝামেলা চলছে।তুরস্ক বনাম ফ্রান্স ,মিশর , ইউএই। লিবিয়াতে গত ৬ বছর ধরে সিভিল ওয়ার চলছে। তুরস্ক সমর্থিত GNA(জঙ্গি হিসাবে পরিচিত) দল এবং খালিফা হাফতারের যাদের সমর্থন করে ফ্রান্স, আরব আমিরশাহি এবং মিশর এই দুই দলের মধ্যেই চলছে সংঘর্ষ। ফ্রান্স এতদিন সেভাবে এর মধ্যে যুক্ত ছিলনা। তবে কিছুদিন আগে তুরস্ক ইচ্ছা করে ফ্রান্সের সাথে ঝামেলায় জড়িয়েছে।

ফ্রান্সের সাথে ঝামেলার ফলও ভোগ করতে হয়েছে তাদের। ফ্রান্সের এয়ারস্ট্রাইকে বেশ ক্ষতি হয়েছে তুরস্কের। তুরস্কের MIM -23 Hawk স্যম সিস্টেম ইনস্টল ছিল একস্থানে। এই MIM-23 Hawk আমেরিকার তৈরি একটি মিডিয়াম রেঞ্জ এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম। তুরস্ক এর অত্যাধুনিক ভার্সন ব্যবহার করছিল যাতে সর্বাধুনিক রেডার থাকা সত্ত্বেও কিছু করতে পারেনি তুরস্ক। প্রথমাবস্থায় অনেকের মতে এই হামলা ইউএই এর মিরাজ ২০০০ করেছিল বলে মনে করা হয়েছিল, তবে শেষ মুহূর্তে জানা যায় এটি ফ্রান্সের রাফালের কাজ। এই সংঘর্ষের ফলে তুরস্কের বেশ সেনাও খতম হয়েছে। হতে পারে ফ্রান্স ভারতের MMRCA 2 এর জন্য ডেমো দেখাচ্ছে রাফালে যুদ্ধবিমানের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *