হজমশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। বহেরার অসাধারন কিছু উপকারিতা

নিউজ ডেস্কঃ ত্রিফলার মান শোনেনি এমন মানুষ পাওয়া বেশ মুশকিল। কারন একাধিক পুজা অর্চনায় কাজে এই লাগে এই ত্রিফলা। আর এই ত্রিফলা হল তিনটি ফলের সমন্বয়। হরিতকি, আমলকী আর বহেরা। তিনটি ফলের কাজ অসাধারণ। তবে বহেরা একাধিক কঠিন রোগ সারাতে বেশ বড় ভুমিকা নিয়ে থাকে।

হজমশক্তি বাড়াতেঃ বহেড়া হজমশক্তি বৃদ্ধিকারক।এই ফলের খোসা ভালো করে গুড়ো করে নিন। জলে সঙ্গে এই গুড়ো দিনে দুবার খেয়ে যান। ক্ষুধামান্দ্য তাড়াতেও একই প্রনালি অনুসরন করতে পারেন।

শ্লেষ্মা নিরাময়ঃ প্রথমে বহেড়া পিষে নিন।এর সঙ্গে গরম ঘি মিশিয়ে আবার গরম করে নিন।শেষে মধু দিয়ে খেয়ে ফেলুন।পাশাপাশি সর্দি কাশি তাড়াতেও বহেড়া বেশ উপকারে আসে।

আমাশয় থেকে দূরে থাকতেঃ আমাশয় ভুগছেন? তাহলে প্রতিদিন সকালে বহেড়ারা গুড়ো মেশানো জল খেয়ে যান উপকার পাবেন।

হাঁপানি থেকে মুক্তি পেতেঃ বহেড়ার বীজের শাঁস ২ ঘণ্টা অন্তর চিবিয়ে খেলে হাঁপানি থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। তবে চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী এই পদ্ধতি মেনে চলুন।

কৃমিনাশ করতেঃ পেটে কৃমি হয়েছে? হাতের কাছে সমাধান হিসাবে বহেড়া রয়েছে।

ডায়রিয়া প্রতিকারেঃ ডায়রিয়া হলে বহেড়ারা খোসা জলের সঙ্গে মিশিয়ে খেতে পারেন।অল্পমাত্রায় খেলে এর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয় না।তবে ডাক্তারের পরামর্শ মেনে খাওয়া উচিত।

অনিদ্রা রোগেঃ রাতের পর রাত নির্ঘুমে কেটে যায়? এখন থেকে চমৎকার ঘুমের জন্য বহেড়া খেয়ে যান।

শ্বেতি থেকে বাঁচাতেঃ বহেড়ারা বিচির শাঁসের তেল থাকে। এই তেল দিয়ে শ্বেতি স্থানে প্রলেপ দেওয়া যেতে পারে। আশা করা যায় অল্প দিনের মধ্যে রং স্বাভাবিক হয়ে আসবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.