তুলসি পাতা গনেশ পুজাতে কেন নিষিদ্ধ?

তুলসির পাতা আমরা পবিত্র হিসাবে ধরি।কারন দেবতাদের পুজোতে তুলসি পাতা লাগে বিশেষ করে নারায়ণের পূজার কাজে তো তুলসি পাতা ব্যবহার করতেই হয়।তুলসি পাতা সব দেবতার পূজার কাজে লাগলেও সিদ্ধিদাতা গনেশের পূজার কাজে তুলসি পাতা লাগে না।কেন গনেশ পুজায় তুলসি পাতা নিষিদ্ধ? জেনে নিন তার কারন।

গনেশ পুজায় তুলসি পাতা নিষিদ্ধর পিছনে একটি পরানিক কাহিনী রয়েছে।সেটি হল একবার গনেশ গঙ্গার তীরে বসে তপস্যা করছিলেন।ওই সময় তুলসি তার বিবাহের জন্য যাত্রা করেছিলেন।তখন পথে গনেশকে তপস্যারত অবস্থায় দেখেন এবং তুলসি তার উপর মহিত হয়ে বিবাহ করার প্রস্তাব দিলেন সিদ্ধিদাতা গনেশকে।তুলসি জন্যে গনেশের ধ্যান ভঙ্গ হয় এবং গনেশ বলেন যে তিনি ব্রহ্মচারী তাই তিনি বিবাহের প্রস্তাবকে অস্বীকার করেন।এইজন্যে তুলসি গনেশের উপর ক্রোধিত হন এবং গনেশকে অভিশাপ দেন যে তার বিবাহ তার ইচ্ছানুসার হবে না এবং গনেশ যেহেতু ব্রহ্মচারী পরিচয় দিয়েছিলেন তাই তার দুটো বিয়ে হবে।তারপর গনেশও তুলসীর ওপর রেগে গিয়ে তাকে অভিশাপ দেয় যে তার বিবাহ হবে একজন অসুরের সাথে।

এই অভিশাপ পেয়ে তুলসি তার ভুল বুঝতে পারে তিনি গনেশের কাছে ক্ষমা প্রাথনা করেন।ক্রোধ শান্ত হলে গনেশ বলেন যে তুলসীর বিবাহ শঙ্খচূর্ণ রাক্ষসের সাথে হবে এবং শাপ পূর্ণ হবার পরই নারায়নের কাছে অত্যন্ত প্রিয় হয়ে উঠবে এবং কলিযুগে তুলসীর মাহাত্ম্য এতটায় বেশি হবে যে যেকোনো পুজোতে তুলসিকে পবিত্র হিসাবে গন্য করা হবে।এবং তার সাথে গনেশ বলেন যে তার পুজায় তুলসী ব্যবহার করা চলবে না।আর তাই গনেশ পুজাতে তুলসি পাতার ব্যবহার নিষিদ্ধ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.