অ্যালোভেরা ও আমলার রস। যে জিনিস গুলি মেনে চললে ৬০ বছর বয়সেও গ্ল্যামারস থাকতে পারবেন

নিউজ ডেস্ক  – সেলিব্রিটিদের মতন বয়স ধরে রাখতে চান! অথচ বহু কষ্ট করেও তা সম্ভব হচ্ছে না। তাহলে বাবা রামদেবের এই পাঁচটি টিপস অনুসরণ করলেই ধরে রাখতে পারবেন বয়স। কারণ শুধুমাত্র বয়স ধরে রাখার সেই প্রতিভা সেলিব্রেটিদের নেই সাধারণ মানুষেরও আছে। 

বৈজ্ঞানিক মতে সেলিব্রেটিরা যদি পারে তাহলে আমরা কেন পারব না! তবে নিয়মিত কিছু রুলস মেনে চলতে হবে। কারণ একজন সেলিব্রিটি তার ৬০ বছর বয়সেও গ্লামার্স থাকে। যেটা সাধারন মানুষের ক্ষেত্রে দেখা যায় না। কিন্তু বয়স হয়ে গেলেও কেউ বুড়িয়ে যায় না তার জলজ্যান্ত প্রমান হচ্ছে বাবা রামদেব।  যদি আপনিও চান তাহলে এই পাচটি টিপস অনুসরণ করতে হবে। 

l)  খালি পেটে জল পান করতে হবে – রোজ সকালে উঠে খালি পেটে পরিমাণমতো জল পান করলে বহু সমস্যার সমাধান হতে পারে। তবে সেই জল জমে ঈষদুষ্ণ হয় তাহলে তো কোন কথাই নেই। কারণ এই জল পান করলে যেমন ওজন কমে ঠিক সেই রকমই কলেষ্ট্রল নিয়ন্ত্রণে আসে এবং পেট পরিষ্কার হয়।  তবে এটি প্রতিদিন নিয়মিত পান করতে হবে। সে ক্ষেত্রে প্রথমে একবারে বেশি জল খাওয়া উচিত নয়। প্রতিদিন খেতে খেতে জলের পরিমাণ বাড়াতে হবে। তবে শুধু সকালবেলা নয় প্রায় সারাদিনই অধিক পরিমাণে জল খাওয়া প্রয়োজন। 

ll)  ইয়োগা বা ব্যায়াম করতে হবে –  শরীর সুস্থ রাখতে প্রতিদিন করতে হবে ব্যায়াম।  কারণ প্রাচীন যুগের ঋষি মুনি ঋষিরা ব্যায়ামের কথাই বলে  গিয়েছেন।  সেক্ষেত্রে প্রতিদিন অন্তত ৩০ মিনিট করে সপ্তাহে ৫ দিন ব্যায়াম করা উচিত। তবে কোন ব্যক্তি কি ব্যায়াম করব সেটি তার শারীরিক স্মৃতির উপর ভিত্তি করছে। তবে প্রথমে কোন ব্যায়াম শুরু করবে সেটা বুঝতে না পারলে হাঁটা শুরু করুন। কারণ হাটাব একটা ব্যায়াম এর মাধ্যমে শরীরে রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি পায়।  

lll)  অ্যালোভেরা ও আমলার রস – শরীর সুস্থ রাখতে গেলে আমি রোজ সকালে উষ্ণ গরম জলে অ্যালোভেরা ও আমলার রস খাওয়া যেতে পারে। কারণ এই দুটি ফলে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ভিটামিন প্রচুর পরিমাণে থাকে যা শরীরের পক্ষে ভালো।  প্রতিনিয়ত দুধ পান করলে এবং এটি অভ্যাসে পরিণত করলেন ওজন কম হবে, কোষ্ঠকাঠিন্য নিয়ন্ত্রণে আসবে এবং ত্বকের জেল্লা ফিরবে।  

lv)   অধিক পরিমাণে সবুজ শাকসবজি  –  প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় শাকসবজি ও ফল রাখা প্রয়োজন। সেক্ষেত্রে সকালের খাবারের শাক-সবজি ও ফল খেতে পারেন দুপুরে উপায় এবং রাতে শুধু শাকসবজি ফল এড়িয়ে চলা ভালো। কারণ শাকসবজি ও ফলে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার, ভিটামিন, খনিজ পদার্থ ইত্যাদি। যা শরীরের পক্ষে খুবই কার্যকর।  

V)  রোজ সকালে এক কাপ লিকার চা – বহু মানুষের সকালে উঠে চা খাওয়া অভ্যাস রয়েছে। কিন্তু সেই ক্ষেত্রে বাবা রামদেবের পরামর্শ অনুযায়ী দুধ চা এড়িয়ে চলুন। কারণ দুধ চা খেলে যেমন গ্যাস হয় ঠিক সে ভাবে অন্যান্য উপসর্গ দেখা দিতে পারে। তাই প্রতিদিন সকালে লিকার চা পান করা প্রয়োজন। যদি সেই চায়ে চিনি না থাকে তাহলে আরও ভালো।

Leave a Reply

Your email address will not be published.