পৃথিবীর সবথেকে গভীরতম মেট্রোরেল স্টেশন রয়েছে। যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনের অবাক করা কিছু তথ্য

নিউজ ডেস্ক- একজন ব্যক্তি বছরে প্রায় 14 লিটার মদ পান করে থাকে। ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন এর মতে এটি বিশ্বের 6 তম মদ্যপান করা দেশ। ইউক্রেন, ইউরোপের একটি রাস্ট্র। রাশিয়ার পর এটি ইউরোপ মহাদেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম।ইউক্রেনের পশ্চিমে পোল্যান্ড, স্লোভাকিয়া ও হাঙ্গেরি, দক্ষিণ-পশ্চিমে রোমানিয়া ও মলদোভা, দক্ষিণে কৃষ্ণ সাগর ও আজভ সাগর, পূর্বে ও উত্তর-পূর্বে রাশিয়া এবং উত্তরে বেলারুস। ইউক্রেনের রাজধানী হল কিয়েভ। এখানকার সরকারি ভাষা ইউক্রেনিয়ান।

ইউক্রেন দেশ সম্পর্কে কিছু অজানা তথ্য হলো

1. ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভ হল বহু পুরাতন শহর ও ঐতিহাসিক স্থান। এখানকার বহু পুরাতন নিদর্শন ও ঐতিহাসিক ইমারত দেখতে নানান দেশ থেকে বহু পর্যটক এখানে ঘুরতে আসেন। 

2. এই দেশটিতে পৃথিবীর সবথেকে সুন্দর মহিলাদের জন্মস্থান বলে মনে করা হয়। দেশটিতে দেহব্যবসা অবৈধ হলেও এখানে বহু সংখ্যক মেয়েদের এই কাজ করতে দেখা যায়। যদিও সরকার এ বিষয়ে কোনো কঠোর শাস্তির নেন না। 

3. এদেশের মানুষেরাও বই পড়তে খুব পছন্দ করে এবং বাচ্চাদের বই পড়ার প্রতি আগ্রহী করে তোলে। এবং দেশটি বিশ্বের মধ্যে চতুর্থ শিক্ষিত দেশ। 

4. এটি একটি শিক্ষিত দেশ হওয়া সত্ত্বেও এখানকার মানুষেরা অতিরিক্ত মাত্রায় মদ্যপান করে থাকে। এখানকার একজন ব্যক্তি বছরে প্রায় 14 লিটার মদ পান করে থাকে। ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন এর মতে এটি বিশ্বের 6 তম মদ্যপান করা দেশ। 

5. এই দেশটিতে রয়েছে পৃথিবীর সবথেকে গভীরতম মেট্রোরেল স্টেশন। ইউক্রেনের আর্সেলেন্না নামক এই স্টেশনটি মাটি থেকে 105.5 মিটার নিচে  রয়েছে। 

6. এই দেশের প্রতিটি শহরে, গলিতে, রাস্তার মোড়ে এমনকি স্টেশনে যেখানেই আপনি যান না কেন আপনি একটি করে ম্যাকডোনাল্ড এর দোকান দেখতে পাবেন। 

7. এই দেশটিকে একসময় ব্রেডবাস্কেট ও বলা হত। এই দেশে উৎপাদিত ব্রেড ইউরোপের মধ্যে সবথেকে উন্নত মানের হয়। এখানকার ব্রেড পুরো ইউরোপে রপ্তানি করা হয়। 

8.1986 সালের 20 এপ্রিল এই দেশে ঘটিত চেয়ারনোবেল ডিজাস্টার হয যা পুরো বিশ্বকে স্তব্ধ দিয়েছিল। নিউক্লিয়ার পাওয়ার প্লান্টে হওয়া এই বিপর্যয়ের ফলে শক্তিশালী রেডিয়েশনের কারণে সেখানে মানুষ প্রবেশ করা এখনো ঝুঁকিপূর্ণ। এমনকি এর আশেপাশে কোন প্রকার বসতির এখন দেখা যায় না। কিছু লোকেরা মনে করে রাতের বেলায় এই জায়গা থেকে অদ্ভূৎ শব্দ শোনা যায়। 

9. বিশ্বের সবথেকে বড় প্লেন এ দেশে রয়েছে। Antanov AN225 maiya প্লেন টির লম্বা প্রায় 86.4 মিটার। এবং 6 লাখ 40 হাজার কিলোগ্রাম এর ওজন।

10. দেশটিকে ক্যাপিটাল অফ ক্যাফে ও বলা হয়। এখানে প্রায় 100 মিটার অন্তর অন্তর একটি ক্যাফে অবশ্যই দেখতে পাওয়া যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.