পৃথিবীর সবথেকে বিষধর সাপ দেখা যায়। অস্ট্রেলিয়ার সম্পূর্ণ নাম অনেকেরই অজানা

নিউজ ডেস্ক- এমন দেশের নাম জানেন যেখানে প্রধানমন্ত্রী বিয়ার খেয়ে রেকর্ড তৈরি করেছিলেন? বা যেখানে মানুষের থেকে ভেড়ার সংখ্যা বেশি। পুরো বিশ্বে সমুদ্র সৈকতের দেশ হিসেবে পরিচিত অস্ট্রেলিয়া। অস্ট্রেলিয়াকে পৃথিবীর সবচেয়ে সুন্দর দেশ বলে মনে করা হয়। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর এই দেশের রাজধানী হল ক্যানবেরা। এখানকার জনসংখ্যা প্রায় 2 কোটি 54 লাখ। এখানে 86 শতাংশ মানুষ শহরে এবং 14 শতাংশ মানুষ গ্রামে থাকেন।

 অস্ট্রেলিয়ার সম্পর্কে কিছু বিস্ময়কর তথ্য হলো-

1. অস্ট্রেলিয়া পৃথিবীর সবথেকে ভয়ানক সাপ গুলো দেখতে পাওয়া। আশ্চর্যের বিষয় এই যে অস্ট্রেলিয়ার পার্শ্ববর্তীদেশ নিউজিল্যান্ডে একটিও সাপ দেখা যায় না।

2. অস্ট্রেলিয়ায় প্রায় 10 হাজারেরও বেশি সমুদ্র সৈকত আছে। এবং যদি কেউ প্রতিদিন একটি করে সমুদ্রসৈকতে ঘুরতে যায় তাহলে তার 27 বছরের ও বেশি সময় লেগে যাবে পুরো সমুদ্র সৈকত গুলি ঘুরতে।

4. বিভিন্ন ছোট ছোট দ্বীপ নিয়ে তৈরি অস্ট্রেলিয়ার অফিসিয়াল নাম হল কমনওয়েলথ অফ অস্ট্রেলিয়া। অস্ট্রেলিয়া সবথেকে সুন্দর শহর সিডনিতে পেরা হাউস দেখা যায় যা অনেকটা দেখতে দিল্লি লোটাস টেম্পল এর মত।

5. অস্ট্রেলিয়ায় মানুষের সংখ্যা থেকে ক্যাঙ্গারুর সংখ্যা বেশি। অস্ট্রেলিয়ায একমাত্র দেশ যেখানে ক্যাঙ্গারু দেখতে পাওয়া যায়। ক্যাঙ্গারুর জন্য অস্ট্রেলিয়া বিশ্ব বিখ্যাত।

6. অস্ট্রেলিয়ার  রাষ্ট্রভাষা ইংলিশ এছাড়াও এখানে 200 টিরও বেশি ভাষা বলা হয়। এবং এখানে 30% লোক অন্য দেশ থেকে এসে এখানে বসতি স্থাপন করেছে যাদের মধ্যে গ্রিকদের সংখ্যা সবথেকে বেশি।

7. অস্ট্রেলিয়া একটিমাত্র দেশ  যেখানে  নিউজিল্যান্ডের পর 1902 সালে মেয়েদের ভোটদানের অধিকার দেওয়া হয়েছিল ।

8. হ্রদের জল সাধারণত নীল হয়ে থাকে কিন্তু অস্ট্রেলিয়ায় এমন একটি লবণাক্ত হ্রদ আছে যার রং গোলাপি। হ্রদের এই  জল গোলাপি হওয়ার কারণ আজ পর্যন্ত কেউ মীমাংসা করতে পারেনি।

9. অস্ট্রেলিয়ায় জনঘনত্ব খুবই কম এখানে প্রতি স্কয়ার কিমিতে মাত্র তিনজন লোক বসবাস করে। এবং প্রায় আড়াই কোটি মানুষের বসতির মধ্যে 15 কোটি ভেড়া দেখা যায়। ক্যাঙ্গারুর মতো এখানেও প্রচুর পরিমাণে ভেরা ও দেখা যায়।

10. সুইজারল্যান্ডে সবথেকে বেশি বরফ বৃষ্টি হলেও অস্ট্রেলিয়ায় একটি জায়গা আছে যেখানে এর পরিমাণ বেশি।

11. এখানকার মানুষের সবথেকে পছন্দের পানীয় হলো বিয়ার। এবং ওয়াইন উৎপাদন ও রপ্তানিতে অস্ট্রেলিয়া এগিয়ে  আছে। প্রতিবছর প্রায় 1.35 ট্রিলিয়ন ওয়াইন তারা রপ্তানি করে।

12. অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বব হক 18 সেকেন্ডে 1.8 লিটার বিয়ার খেয়ে বিশ্বরেকর্ড তৈরি করেছিলেন।

13. অস্ট্রেলিয়ার শহর গুলির জাঁকজমকপূর্ণ ও অন্যান্য শহর গুলির মত টপ ক্লাস সুবিধা থাকায় এই এই শহরকে বেস্ট  সিটি ফর লিভিং পুরস্কারে সম্মানিত করা হয়েছে।

14. অস্ট্রেলিয়ার মানুষদের পড়াশোনার থেকে খেলাধুলার প্রতি  বেশি আগ্রহ দেখা যায়। এখানে প্রতিটি বাচ্চা ফুটবল, টেনিস এর মতো বিভিন্ন খেলার সঙ্গে যুক্ত থাকে। এখানকার 70% জনসাধারণ কোন না কোন খেলায় অংশগ্রহণ করে। এবং প্রতি শনি ও রবিবার তারা বিভিন্ন ধরনের কম্পিটিটিভ খেলার আয়োজন করে থাকে।

15. হিউম্যান ডেভেলপমেন্ট এ অস্ট্রেলিয়া দ্বিতীয় অংশ অধিকার করে আছে।

16. এখানে সব থেকে বেশি গাছপালা পশুপাখি দেখতে পাওয়া যায় যা বিশ্বের অন্য কোন দেশে দেখা যায় না এবং এই প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেখার জন্য প্রতিবছর বহু মানুষ অস্ট্রেলিয়ায় ঘুরতে আসেন।

17. মাংস উৎপাদনের অস্ট্রেলিয়া বিশ্বের অন্যান্য দেশের মধ্যে একটি। অস্ট্রেলিয়ায় প্রচুর পরিমাণে উট পাওয়া যায়, এবং অস্ট্রেলিয়া এই উটের মাংস সৌদি আরবে রপ্তানি  করে বহু মুনাফা অর্জন করে। এছাড়াও অস্ট্রেলিয়া সাউথ আমেরিকায় ভেড়ার মাংস রপ্তানি করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.