ব্রহ্মা থেকে শুরু করে চীনা মন্দির। কলকাতা থেকে শুরু করে বারানসি। ভারতবর্ষের অবাক করা ৫ টি রহস্যময় মন্দির

নিউজ ডেস্কঃ ভারতবর্ষে এমন অনেক মন্দির আছে যার মধ্যে রয়েছে অনেক রহস্য।এই মন্দিরগুলির মধ্যে লুকিয়ে রয়েছে এমন অনেক অলৌকিক ঘটনা এবং অবাক করা রহস্য।এই রকমই ভারতের অবস্থিত পাঁচটি মন্দির হল-

১) ডুবন্ত মন্দির (বারানসী): এই মন্দিরটি বারানসীর সিন্ধিয়া ঘাটের কাছে অবস্থিত। যা পুরোপুরি জলের মধ্যে ডুবন্ত অবস্থায় রয়েছে। এই কারনে এখনও পর্যন্ত এই মন্দিরটি অব্যবহৃত অবস্থায় পড়ে রয়েছে।

২) ব্রহ্মা মন্দির (পুষ্কর): এই পৃথিবীতে এই একটি মাত্র মন্দির রয়েছে সৃষ্টি কর্তা ব্রহ্মার। এই মন্দিরটি পুষ্করে অবস্থিত। মন্দিরের ভিতরে রয়েছে চারটি মস্তক ওয়ালা ভগবান ব্রহ্মার মূর্তি। চতুর্দশ শতকে নির্মিত করা হয়েছিল এই মন্দিরটিকে।

৩) চীনা মন্দির (কলকাতা): কলকাতার ট্যাংরা এলাকাতে চায়নাটাউন নামের এক ছোট্ট শহর আছে। যেখানের অধিকাংশ বাসিন্দা  চীনা। এই এলাকাতে রয়েছে একটি চীনা মন্দির যেখানে পূজা করা হয় মা কালীকে।এই মন্দিরের থেকে এখানকার প্রসাদটা একটু অদ্ভুত।কারন এখানে প্রসাদ হিসাবে চাউমিন দেওয়া হয়ে থাকে। 

৪) স্তম্ভেশ্বর মহাদেব মন্দির (ভাদোদারা): মহাদেবের এই মন্দিরটি ভাদোদারা থেকে ৪০ মাইল দূরে অবস্থিত। আরব সাগরে অবস্থিত স্তম্ভেশ্বর মহাদেব মন্দিরটি।যেটি শুধুমাত্র ভাঁটার সময় দেখতে পাওয়া যায় এবং জোয়ারের সময় একেবারে গায়েব হয়ে যায়। 

৫) বুলেট মন্দির (রাজস্থান): রাজস্থানের যোধপুরে এই মন্দিরটি অবস্থিত।একটি রয়াল এনফিল্ড বুলেটকে এই মন্দিরে দেবতা হিসাবে পুজো করা হয়।ওখানকার বাসিন্দারা  বিশ্বাস করেন যে, এখানকার অধিবাসীদের জীবন এই বাইকটিই নাকি অনেক সময় বাঁচিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.