ভারতবর্ষের কোবরা বাহিনী কেন সাপের রক্ত পান করে জানেন?

নিউজ ডেস্কঃ সাপকে আমরা অতি বিষাক্ত প্রাণী বলি।আর কোবরা যার এক ছোবলে মানুষের মৃত্যু তো নিশ্চিত।সেই কোবরা সাপের রক্ত নাকি পান করে কিছু মানুষ।কি শুনে অবাক হলেন তো।ভাবছেন যে যতসব আলতু ফালতু কথা।তাহলে বলি যে এটা কোন আলতু ফালতু  কথা নয় এটা সত্য। ভিয়েতনামসহ্ কিছু দেশের মানুষ কোবরা সাপের রক্ত পান করে।যেখানে সাধারণ মানুষজন সাপের রক্ত পান করা দূরের কথা ভাবতেই পারে না।সেখানে ওই সমস্ত দেশের মানুষ এই সাপের রক্ত পান করে।এই সংস্কৃতির কিছু লোক বিশ্বাস করে যে এই সাপের রক্ত পান করার ফলে শরীরে রোগমুক্ত রাখতে এবং শরীরে কার্যক্ষমতা বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে।বিশেষ করে বিভিন্ন দেশের সামরিক বাহিনীতে বনজঙ্গলে এবং পাহাড়ের প্রতিকূল পরিস্থিতিতে  কিভাবে টিকে থাকতে হবে সে বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেওয়ার জন্য সাপের রক্ত পান করানো হয়।

 এছাড়াও তাদেরকে ট্রেনিং  দেওয়ার সময় জঙ্গলে সাপ  কীভাবে ধরতে হয় তার প্রশিক্ষণ সবার আগে দিয়ে তাদেরকে দক্ষ করে প্রশিক্ষক। এরপর সেনারা নিজ হাতে সাপ ধরতে শিখে যায়।এরপর সাপের বিষ দাঁত বের করে কিভাবে  সেই সাপকে কাঁচা চিবিয়ে খেতে হয় এবং তার রক্ত পান করতে হয় তারও প্রশিক্ষণ দিয়ে থাকেন কমান্ডারগণ। সাপের বিষ বিষাক্ত হলেও তার রক্ত বিষাক্ত নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.