ঘুম থেকে উঠে তামার পাত্রে জল পান করলে পেটের সমস্যা, বদহজমের সমস্যা ও কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো রোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যেতে পারে

নিউজ ডেস্কঃ শুদ্ধ পানীয় জল প্রতি ঘরে পৌছাতে ইতিমধ্যে একাধিক পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার থেকে শুরু করে রাজ্য সরকার। যাতে প্রতিটা মানুষ পরিশুদ্ধ জল পান করতে পারে। তবে আগেকার দিনে মানুষ শুদ্ধ জল না পেলেও তামার পাত্র বা মাটির হাড়িতে রেখে জল পান করত তার ফলে বিরাটভাবে সুবিধা হত কারন এর কিছু স্বাস্থ্যকর গুন ও রয়েছে।আজকালকার দিনে আগেকার মতো মাটির হাড়ি বা তামার পাত্রে জল না রেখে সরাসরি প্ল্যাস্টিকের বোতল বা জার ব্যবহার করা হচ্ছে আর তার ফলে একাধিক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে মানুষ। কিন্তু জানেন কি তামার পাত্রের মতো কিছুতে জল রাখা শরীরের পক্ষে কতোটা উপকারি?

ঘুম থেকে উঠে তামার পাত্রে জল পান করলে পেটের সমস্যা, বদহজমের সমস্যা ও কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো রোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যেতে পারে। এমনকি হজম শক্তি বাড়িয়ে তোলে।

তামার পাত্রে জল পান করলে অর্থাৎ কপারের গুণ বৃদ্ধি পায় মানুষের শরীরে। বিভিন্ন ব্যাকটেরিয়া থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

এই তামার পাত্রে জল পান করলে শরীর স্বাস্থ্য সুস্থ থাকার পাশাপাশি ত্বকের মধ্যে কোন ব্রণ বা ব্রেকআউট এর সমস্যা হয় না। বিশেষ করে হাঁটু ব্যথা, কোমর ব্যথা, গোড়ালি ব্যথা হয় তারা এই তামার পাত্রে রাখা জল পান করলে তাদের গাঁটে গাঁটে ব্যথা পর্যন্ত কমে যেতে পারে।

বিভিন্ন ধরনের ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণের হাত থেকে মুক্তি পাওয়া যায় এই তামার পাত্রে জল পান করলে। জন্ডিস, ডায়রিয়া আরও বিভিন্ন ধরনের ব্যাকটেরিয়াকে মেরে ফেলতে কাজ করে তামা।

তামার মধ্যে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট গুণ রয়েছে, যা ক্যান্সার রোগীদের জন্য বিশেষভাবে উপকারী। আমেরিকান ক্যান্সার সোসাইটির মতে,তামার মধ্যে রয়েছে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট যা ক্যানসার হতে রক্ষা মানব শরীরকে রক্ষা করে।

যারা ডায়েট করে তারা তামার পাত্রের জল পান করলে তাদের অতিরিক্ত মেদ কমাতে সাহায্য করে এই তামা। এবং হজম শক্তিও বাড়িয়ে দেয় এই তামার গুন সমৃদ্ধ জল।

প্রতিদিন সকালবেলা উঠে তামার পাত্রে জল পান করলে শরীর স্বাস্থ্য ভালো থাকার পাশাপাশি বিশেষ কিছু উপকার ও হবে আমাদের শরীরের জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.