হৃদরোগের সম্ভাবনা হতে পারে। ঘুম কম হলে যে সমস্যার সম্মুখীন হতে পারেন

নিউজ ডেস্ক: ঘুম। প্রত্যেক মানুষেরই দরকার। তবে আজকাল মানুষ ঘুম না হওয়ার সমস্যায় ভুগছেন। মানসিক চিন্তা কারোর বিভিন্ন কথাবার্তা নিয়ে খারাপ লাগা আবার শরীর খারাপের জন্য অনেকের ঘুম আসে না, কিন্তু না ঘুমালে যে বিভিন্ন অসুখ হতে পারে। ঘুম ঠিকভাবে না হলে মানুষকে বিপদের মুখে ঠেলে দেয়।

  • বিষন্নতা: বিশেষজ্ঞদের মতে কম ঘুমালে বিষন্নতা দেখা যায়। কম ঘুম হওয়ার কারণে অনেক মানুষ ভাবে তাদের শরীর সুস্থ আছে কিন্তু তারা কোন কাজে যুক্ত হতে পারে না বা কোন কাজ করতে গেলে তাদের মন বসে না তাদের মাথায় উল্টাপাল্টা অনেক ধরনের চিন্তা ভাবনা চলে আসে এর ফলে তাদের একটা ভীষণ মনে একটা বিষন্নতা সৃষ্টি হয় এটি শরীরের জন্য খুবই ক্ষতিকারক।
  • ত্বকে বয়সের ছাপ: কুড়ি বছর পেরোলেই ত্বকের আর্দ্রতা কমে যায়।  যদি ঠিকমতো ঘুম না হয় তাহলে  ত্বকের কর্টিসল নামের হরমোন ক্ষরণ বেড়ে যায়। ত্বকে থাকা কোলাজেনকে নষ্ট করে দেয় ফলে ত্বকের যৌবনও তা কমে যায়‌।  কোলাজেন দিনদিন কমতে থাকার ফলে বয়স্কদের মত হয়ে যায় ত্বক । চোখের নিচে ডার্ক সার্কেল বা কালি পড়ে যায় এতে সৌন্দর্যটাও কমে যায় ত্বকের।
  • সেক্সের ইচ্ছা কমে যায়: কম ঘুমালে সেক্স করার ইচ্ছা টাও আস্তে আস্তে চলে যায়। বিশেষজ্ঞদের মতে কম ঘুমালে পরে সেক্সের ইচ্ছাটাও নষ্ট হয়ে যেতে পারে এর ফলে যে হরমোনের উত্তেজনা সৃষ্টি করে সেটা আস্তে আস্তে নষ্ট হয়ে যায়। এখন যদি রিলাক্সেই না পাওয়া যায় তাহলে সেক্স আসবে কোথা থেকে?
  • হৃদরোগের সম্ভাবনা: কম ঘুমালে হৃদরোগের সমস্যা ও দেখা যায়। বিশেষজ্ঞদের মতে কম ঘুমালে হার্ট অ্যাটাক আবার হার্টফেল ও হতে পারে।  ব্লাড প্রেসার, ডায়াবেটিস আরো অনেক বিপদজনক রোগ দেখা দিতে পারে না ঘুমালে। এইজন্য দিন ৮ ঘণ্টা করে ঘুমানোর প্রয়োজন।
  • স্থূলতা: ঘুম প্রত্যেক মানুষের দরকার। সঠিক সময় না ঘুমালে বেশি খিদে পায় এমনটাও দেখা গেছে। অনেকে বলেন বেশি ঘুমালে মোটা হয়ে যায় কিন্তু বিশেষজ্ঞদের মতে কম ঘুমালে শরীরের ফ্যাট জমে এর ফলে  শরীর স্থূলতায় পরিণত হয় ।
  • সব ভুলে যাওয়ার প্রবণতা: ঘুমালে কোন কিছু চিন্তা মাথায় আসে না। যদি কম ঘুম হয় তাহলে অনেক কিছু ভুলে যাওয়ার প্রবণতা বেড়ে যায়।   যেই জিনিস গুলো গুরুত্বপূর্ণ  কম ঘুমানোর ফলে তারা সেই গুরুত্বপূর্ণ জিনিস গুলোকে ভুলে যায় ধীরে ধীরে।   চিকিৎসকদের মতে, কম ঘুমানোর জন্য স্মৃতিশক্তি দুর্বল হয়ে পড়ে।

দুর্ঘটনারপ্রভাব: অনেক চিন্তা ভাবনা চলে আসার কারণে কম ঘুম হয়ে থাকে। এর ফলে মস্তিষ্কের ওপর একটি চাপ সৃষ্টি হয়। অনেক গুরুত্বপূর্ণ জিনিস ভুলে যেতে থাকে। মস্তিষ্কের ওপর যে একটি চাপ সৃষ্টি হয় এর ফলে তারা কখন কী করে বা তারা  কখন কোন কাজটা  করেছে সেইটাও তারা মনে রাখতে পারে না অনেক বিপদ হতে পারে তাদের। এইজন্য প্রয়োজন ভালো ঘুমের। ভালো ঘুমালে মন ও ঠিক থাকে এবং কাজের ক্ষেত্রে কোন রকম অসুবিধা দেখা যায় না। তাই প্রথমে সবাইকে শরীরের ওপর নজর দিতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.