গবেষকদের মতে প্রতিদিন ৩০ মিনিট মিউজিক শুনলে হার্ট অ্যাটাক রুগিদের উদ্বেগ এবং ব্যাথার মাত্রা তুলনামূলক কমতে পারে

মিউজিক থেরাপি চিকিৎসাক্ষেত্রে এক নতুন আবিষ্কৃত পদ্ধতি।যার মাধ্যমে সুস্থ হতে পারেন আপনারা।মিউজিক যে শুধু হৃদয়কে আনন্দ প্রদেন করে তা নয় হৃদয়ের নানান সমস্যা থেকেও মুক্তি দিতে সাহায্য করে।নিয়মিত মিউজিক বা গান শুনলে বুকে ব্যাথার মতো কষ্টের থেকে মুক্তি।

গবেষকদের মতে প্রতিদিন ৩০ মিনিট মিউজিক শুনলে হার্ট অ্যাটাক রুগিদের উদ্বেগ এবং ব্যাথার মাত্রা তুলনামূলক কমতে পারে। তবে ইনফারাকশান এনজিনা অর্থাৎ হার্ট অ্যাটাকের পরেই যে বুকে ব্যাথা সহ্য করতে হয় সেটি এই চিকিৎসা সহায়তা করতে পারে না। এটি শুধুমাত্র হৃদরোগে আক্রান্ত রোগীদের হৃদ উদ্বেগ ও ব্যাথার উপশম হিসাবে কাজ করে।তবে এই চিকিৎসা পদ্ধতির অন্তর্গত হতে হলে তার আগে কিছু পরিক্ষা করে নিতে হয়।গবেষকদের মতে মিউজিক থেরাপি গ্রহণকারী রোগীদের প্রথমে পরিক্ষা করে নিতে হবে যে তাদের দেহে কোন বাদযন্ত্রটি ইতিবাচকভাবে প্রতিক্রিয়া জানাতে পারে।

গবেষকদের মতে মিউজিক থেরাপি বহু হৃদরোগ সংক্রান্ত নানান সমস্যার উপশম ঘটাতে পারে।এই মিউজিক থেরাপি থেকে এতে অংশগ্রহনকারী রোগীরা অনেক উপকার পেয়েছে।

তাই অ্যামেরিকায় অ্যামেরিকার কলেজ অব কারডিওলজির বার্ষিক বৈজ্ঞানিক অধিবেশনটির সঙ্গে কারডিওলজি ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস একসাথে হয়ে এই গবেষনা উপস্থাপিত হওয়ার কথা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.