মানুষের মাংস খেতে বেশি ভালোবাসে কোন গাছ? মাদাগাস্কার সহ বিশ্বের বিভিন্ন অঞ্চলের ঘন জঙ্গল ঘেরা জায়গায় এই ধরনের গাছের বেশ কিছু প্রজাতি দেখতে পাওয়া যায়

নিউজ ডেস্কঃ ছোটবেলায়  মানুষ খেকো গাছের গল্প আমরা অনেকেই শুনেছি ।অনেক সময় বাচ্চাদের ভয় দেখানোর জন্য অনেকেই এই গাছের গল্প বলে থাকেন। ছোটবেলায় অনেকেই ভাবতাম  সত্যিই বুঝি এমন এক গাছ পৃথিবীতে আছে যা মানুষের  মাংস খেতে পছন্দ করে।তবে মানুষখেকো না হলেও পৃথিবীতে সত্যিই কিন্ত এমন এক ধরনের গাছ আছে যারা মাংস খেতে পছন্দ করে । অবিশ্বাস্য হলেও একথা সত্যিই ।আসুন আজকে জেনে নেই এই বিশেষ ধরনের গাছের কথা ।

মাদাগাস্কার সহ বিশ্বের বিভিন্ন অঞ্চলের ঘন জঙ্গল ঘেরা জায়গায় এই ধরনের গাছের বেশ কিছু প্রজাতি দেখতে পাওয়া যায়। তবে বেশিদূর যেতে হবে না এর খোঁজে।আমাদের প্রতিবেশী দেশ বাংলাদেশ এই দেখতে পাওয়া যায় এই গাছ ।বাংলাদেশের সিলেটের কিছু অঞ্চলে দেখা যায় এই মাংস খেকো গাছ । এই গাছগুলি সাধারণত পোকামাকড় খেয়ে বেঁচে থাকে ।তবে প্রশ্ন জাগা স্বাভাবিক যে এই  ‌গাছ গুলি পোকামাকড় খায় কেন ?সাধারণত এই গাছগুলি এমন জায়গায় জন্মায় যেখানে মাটি থেকে এরা পর্যাপ্ত খাদ্যের যোগান পায় না ফলে এই গাছগুলির গঠন এমনই যাতে এরা বিভিন্ন প্রজাতির উদ্ভিদ ও পোকামাকড় খেয়ে এরা জীবন ধারণ করতে পারে । এই মাংসখেকো গাছ গুলির মধ্যে কয়েকটি উল্লেখযোগ্য প্রজাতি হলো  কলস, স্ন্যাপ ট্র্যাপ, লবস্টার-পট ট্র্যাপ, ফ্লাইপেপার ট্র্যাপ,  ব্লাডার ট্র্যাপ, ভেনাস ফ্লাইট্র্যাপ ইত্যাদি।

এই প্রজাতির গাছগুলি শিকার ধরার জন্য বিভিন্ন রকম ফাঁদ পেতে রাখে যেমন কলস প্রজাতির গাছে  অনেকটা কলসির মত দেখতে প্রত্যঙ্গ দেখতে পাওয়া যায় । বাইরে থেকে দেখে সাধারণ মনে হলেও এই কলসের ভেতরে অনেকটা মধুর মত দেখতে লাল রঙের এক তরল পদার্থ থাকে আর এতে আকৃষ্ট হয়েই পোকামাকড় এসে বসে এই উদ্ভিদের ওপর ।পা ফসকে পোকামাকড় এই তরলের মধ্যে পড়ে গেলে কলস এর উপরের ঢাকনা বন্ধ হয়ে যায় ফলে পোকাটি ওই ফাঁক থেকে আর বের হতে পারে না  । পরবর্তীতে গাছটি পোকাটিকে হজম করে ফেলে।

তবে এ তো গেল কেবল ছোট পোকা-মাকড়ের কথা ।এর থেকে ভয়ঙ্কর মাংসাশী গাছ সম্ভবত আমেরিকার সাউথ ও নর্থ ক্যারোলিনায় প্রাপ্ত ভেনাস ফ্লাইট্র্যাপ। এক ফিট লম্বা এই গাছের পাতা গুলি দেখতে অনেকটা মুখের চোয়ালের মত  ।আর এই পাতাগুলি বহু ছোট ছোট লোমে ভর্তি আর পোকামাকড় যখনই এই পাতার ওপর বসে তখনই ওই রুমে আটকে পড়ে তারা আর মুহূর্তের মধ্যে বন্ধ হয়ে যায় এই পাতা গুলো ।   এই ভেনাস ট্র্যাপের পাতাগুলো খুবই সংবেদনশীল।হওয়ায় আজ সেকেন্ডের মধ্যেই এই পাতা গুলি বন্ধ হয়ে যায়  । পরবর্তীতে  পাতা থেকে একধরণের বিশেষ রস বের হয়ে পোকাকে হজম করতে শুরু করে। এভাবে একটা পোকা হজম করতে ভেনাস ট্র্যাপের সময় লাগে ১০ দিনের মতো।এই গাছের পাতা একসাথে তিন থেকে চারটি পোকা ধরতে পারে এবং কার্যক্ষমতা নষ্ট হয়ে গেলে এই গাছে নতুন পাতা জন্মায় পুনরায় ।

বিভিন্ন গবেষণার সাহায্যে বর্তমানে জানা গেছে উদ্ভিদের এমন আচরণ হওয়ার কারণ ।বিশেষজ্ঞদের মতে এই বিশেষ প্রজাতির গাছগুলোর বেঁচে থাকার জন্য প্রয়োজন প্রচুর পরিমাণে নাইট্রোজেন যার মাটি থেকে পাওয়া সম্ভব হয় না আর এই কারনেই মাংসাশী উদ্ভিদ এ পরিণত হয়েছে । তাদের মধ্যে পরিবর্তিত পরিবেশে টিকে থাকার প্রয়োজনে ক্রমশ বিবর্তনের মাধ্যমে উদ্ভিদ পরিবর্তিত হয়েছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.