শীতকালে হাত পা জ্বালা করলে বা ত্বক বা চামড়া ফেটে গেলে গ্লিসারিনের সঙ্গে লেবুর রস মিশিয়ে মাখালে উপকার পাওয়া যায়

নিউজ ডেস্কঃ পাতিলেবু। এমন এক নাম যা বাঙালির মাথায় মাখা থেকে শুরু করে গায়ে মাখা, খাওয়া দাওয়াতে এক অপরিহার্য নাম। কারন পাতিলেবুর গুন। অতিরিক্ত চর্বি কমানো থেকে শুরু করে লিভারের দোষ, মন চাঙ্গা করতে, চুলকানি, বিষাক্ত পোকা কামড়ালে এক অপরিহার্য ওষুধের ন্যায় কাজ করে এই পাতিলেবু।

সকাল বেলা খাওয়ার আগে খালিপেটে একটা পাতিলেবুর রস গরম জলে মিশিয়ে খেলে লিভারের দোষ ও পিত্তের দোষ সারে- স্বাস্থ্য ভাল থাকে।

এক পেয়ালা কড়া চায়ে একটা পাতিলেবুর রস মিশিয়ে খেলে মাথা ধরা সারে ও মন চাঙ্গা হয়ে উঠে।

পাতিলেবুর রস বহুমূত্র রোগে উপকারি।

স্কার্ভি ও অস্থিসংক্রান্ত রোগে টাটকা লেবুর রসই মহৌষধ।

কয়েক ফোঁটা পাতিলেবুর রস জলে মিশিয়ে পান করলে চোখের জ্যোতি বাড়ে।

শীতকালে হাত পা জ্বালা করলে বা ত্বক বা চামড়া ফেটে গেলে গ্লিসারিনের সঙ্গে লেবুর রস মিশিয়ে মাখালে উপকার পাওয়া যায়।

চুলকানিতে , গায়ে সূর্যে বেশি তাপ লেগে যে কষ্ট হয় তাতে লেবুর রস বিশেষ উপকারি।

বিছে বা বিষাক্ত পোকা যে জায়গায় কামড়েছে লেবু ঘষলে সেই জায়গায় জ্বালা কমে যায়।

শরীরে কোনো জায়গায় কেটে গেলে এক টুকরো কাপড় লেবুর রস ভিজিয়ে জড়িয়ে রাখলে রক্তপড়া বন্ধ হয়।

লেবু টক হলেও অম্লজনক নয়। অল্প পরিমাণে লেবুর রস খেলে রস অম্লত্ব নষ্ট হয়ে যায় এবং ক্ষারগুন বৃদ্ধি পায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.