রোগা হতে ভাত নাকি রুটি কি খাবেন?

নিউজ ডেস্কঃ এখনকার মানুষেরা মেদহীন শরীর পাওয়ার চেষ্টা নানান ধরনের কাজ করে থাকে।যেমন জিম করা ডায়েট করা ইত্যাদি। আর এই ডায়েট করার জন্য অনেকে ভাত ছেড়ে রুটি খান।এই ভাত ও রুটির ক্যালরি ও পুষ্টিগুণ নিয়ে অনেকেরই ভুল ধারণা আছে।তাই কেউ কেউ মনে করেন যে ভাতে ক্যালোরি বেশি,আবার কেউ ভাবেন যে রুটি বেশি পুষ্টিকর।তাহলে জেনে নিন যে কোনটি বেশি উপকারী,ভাত না রুটি।

প্রথমেই আশা যাক ক্যালোরির প্রসঙ্গে যে ভাত ও রুটির মধ্যে ক্যালোরির উপস্থিতি কতটা।বলা হয় যে ভাত এবং রুটি এই দুটোতেই সমান ক্যালোরি আছে।তবে আমরা যেহেতু ভাত বেশি খাই তাই শরীরে বেশি ক্যালোরি যায়।এবং  রুটি আমরা যেহেতু কম খাই তাই আমাদের শরীরে ক্যালোরি অপেক্ষাকৃত কম যায়।

দ্বিতীয়ত,কার্বোহাইড্রেট।ভাতে রুটির থেকে কার্বোহাইড্রেটের পরিমান বেশি থাকে। যার ফলে ভাত খেলে আমাদের শরীরে বেশি এনার্জি পৌঁছায়।

তৃতীয়ত, প্রোটিন।ভাতে রুটির তুলনায় কম প্রোটিন থাকে।তবে ভাতে রয়েছে লাইসিনের মতো অ্যামাইনো অ্যাসিড যার ফলে ভাতে প্রোটিনের মান খুব ভালো।

চতুর্থ,ফ্যাট।এই ফ্যাটের প্রসঙ্গ আসলেই অনেকের মনে হয় যে হয়ত ভাতে রুটির তুলনায় বেশি ফ্যাট আছে।আসলে এই ধারনাটি একদম ভুল।কারন  ভাত বা রুটি দুটোই ধান বা গমের মতো শস্য থেকে হয়।তাই এই ধরনের শস্যে ফ্যাট-এর পরিমান খুব এ কম।তাই বলা চলে ভাত বা রুটিতে ফ্যাটের পরিমান সমান।

পঞ্চম,ফাইবার।রুটিতে ফাইবারের পরিমান ভাতের তুলনায়  অনেকটাই বেশি।আর রুটিতে রয়েছে ইনসলিউবল ফাইবার।যার ফলে রুটি খেলে রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে থাকে। এছাড়াও রুটিতে ভাতের তুলনায় ফসফরাস পরিমান বেশি থাকে। আর এই ফসফরাস আমাদের হাড়ের স্বাস্থ্য, কিডনি, পেশীর স্বাস্থ্য ও হার্ট ভাল রাখতে সাহায্য করে থাকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *